Ultimate magazine theme for WordPress.

অভিবাসী ভর্তি নৌকায় লিবিয়ার কোস্ট গার্ডের গুলি, ডুবিয়ে দেয়ার চেষ্টা

0

ভূমধ্যসাগরে অভিবাসীদের একটি জলযানে গুলি ছুঁড়েছে লিবিয়ার কোস্ট গার্ড। তারা ওই নৌকাটি ডুবিয়ে দেয়ারও চেষ্টা করেছে। ওই জলযানে করে ইউরোপে আসছিলেন অভিবাসীরা। এ যাত্রা এমনিতেই খুব বিপজ্জনক। তারমধ্যে লিবিয়ার কোস্ট গার্ডের এমন আক্রমনাত্মক আচরণ নিয়ে উদ্বেগ জানিয়েছে জার্মান এনজিও সি ওয়াচ ইন্টারন্যাশনাল। তারাই ওই গুলি ছোঁড়ার ভিডিওটি পোস্ট করে। এতে দেখা যাচ্ছে, লিবিয়ার কোস্ট গার্ডের স্পিড বোট অভিবাসীদের একটি জলযানকে তাড়া করছে। শুধু তাড়া করাই নয়, তারা গুলিও ছোড়ে সেটি টার্গেট করে।
বিপজ্জনকভাবে অভিবাসীদের জলযানের খুব কাছ থেকে গুলি ছোড়া হয়। জলযানটি আন্তর্জাতিক জলসীমায় ছিল। সি ওয়াচ একটি বিমান থেকে পুরো ঘটনা ভিডিওবন্দি করে এবং ছবি তোলে। সি ওয়াচের দাবি, জলযানটিকে ডুবিয়ে দিতে চেয়েছিল কোস্টগার্ড।
ডয়চে ভেলে জানিয়েছে, লিবিয়ার কোস্ট গার্ডকে মূলত প্রশিক্ষণ ও অস্ত্র দেয় ইউরোপীয় ইউনিয়ন। তারা লিবিয়ার কোস্ট গার্ডকে সমর্থন করে যাতে করে ইউরোপের দিকে ধেয়ে আসা অভিবাসীদের সমুদ্রেই থামিয়ে দেয়া যায়। চলতি বছরের প্রথম থেকে ২৬ জুন পর্যন্ত লিবিয়ার কোস্ট গার্ড ১৫ হাজার অভিবাসীকে উত্তর আফ্রিকার বিভিন্ন দেশে ফিরিয়ে দিয়েছে। যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশ থেকে মানুষদের এভাবে ইউরোপে আসার চেষ্টা বানচাল করা নিয়ে সমালোচনাও কম হয়নি।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

Translate »