Ultimate magazine theme for WordPress.

৩৬৫ মিনিট পর ইউরোতে সুইডেনের গোল

0

ক্রাইম টিভি বাংলা অনলাইন ডেস্ক…অদ্ভুত এক গেরোয় আটকা পড়েছিল সুইডেন। ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপে জয় তো থাক, গোল করতেই ভুলে গিয়েছিল তারা! অবশেষে গোলের মুখ খুলতে পেরেছে সুইডিশরা। দীর্ঘ ৩৬৫ মিনিট পর ইউরোপিয়ান প্রতিযোগিতায় পেয়েছে গোলের দেখা। এমিল ফরসবার্গের করা যে গোলটি ২০২০ ইউরোতে এনে নিয়েছে সুইডেনের প্রথম জয়। শুক্রবারের প্রথম ম্যাচে স্লোভাকিয়াকে ১-০ গোলে হারিয়েছে ইয়ানে এন্দারসনের দল।
সেই ২০১৬ সালের ইউরোতে নিজেদের প্রথম ম্যাচে গোল পেয়েছিল সুইডেন। উত্তর আয়ার‌ল্যান্ডের সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র করার পর আর জাল খুঁজে পায়নি তারা। ফ্রান্সের আসরের গ্রুপ পর্বে বাকি দুই ম্যাচে গোলহীন থাকার পর এবারের ইউরোর প্রথম ম্যাচে স্পেনের সঙ্গে গোলশূন্য ড্র। অবশেষে ৩৬৫ মিনিট পর সুইডিশরা গোল উৎসব করেছে ফরসবার্গের পেনাল্টি গোলের সৌজন্যে।
সেন্ট পিটার্সবার্গের ম্যাচের প্রথমার্ধটা সুইডেনের হতাশায় কেটেছে। স্লোভাকিয়া সুযোগ তৈরি করলেও বিপদ ঘটানোর মতো কিছু করতে পারেনি। আসলে গোটা ম্যাচেই তারা সেভাবে কিছু করতে পারেনি, গোলমুখে কোনও শট নিতে না পারা যার প্রমাণ। অন্যদিকে কয়েক দফা গোলের সুযোগ তৈরি করেও সফল হতে পারছিল না সুইডেন।
অবশেষে ৭৭ মিনিটে গোলের দেখা পায় সুইডিশরা। পেনাল্টি থেকে গোল করেন ফরসবার্গ। আলেক্সান্দার ইসাকের ফ্লিক দৌড়ে বক্সের ভেতর ঢুকে বলের দখল নিতে গেলে রবিন কাইসন ফাউলের শিকার হন গোলকিপার মার্তিন দুবরাউখার। বল ধরতে গিয়ে কাইসনের পায়ে আঘাত করেন স্লোভাকিয়ান গোলকিপার। ফলে রেফারি পেনাল্টির বাঁশি বাজাতে দেরি করেননি। আর স্পটকিক থেকে পাওয়া সুযোগটা কাজে লাগাতেও ভুল করেননি ফরসবার্গ। ১২ গজ দূর থেকে নেওয়া শট ডান পাশে ঠেলে জালে জড়িয়ে উৎসবের উপলক্ষ এনে দেন সুইডিশ ক্যাম্পে।
ওই গোলটাই ইউরোতে প্রথম ৩ পয়েন্ট এনে দিয়েছে সুইডেনকে। তার আগে প্রথম ম্যাচে স্পেনের সঙ্গে ১ পয়েন্ট পাওয়ায় শেষ ষোলোর পথে বেশ ভালোভাবেই আছে তারা।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

Translate »