Ultimate magazine theme for WordPress.

কোভিড-১৯ এর পরে আসতে পারে আরো ভয়ঙ্কর কোভিড-২৬

0

ক্রাইম টিভি বাংলা অনলাইন ডেস্ক…উহানের ল্যাব-লিক তত্ত্বকে বরাবরই ‘ষড়যন্ত্র’ বলে উড়িয়ে এসেছে চীন। তাহলে কি সেখানকার সি-ফুড মার্কেটই সার্স কোভ-২-এর প্রধান উৎস? খুব স্পষ্ট করে কিছু না-বললেও, বোঝা যায়- তাদের এই খোলা মাছ-মাংসের বাজারকে কাঠগড়ায় তোলা নিয়ে খুব একটা আপত্তি নেই বেইজিংয়ের। কিন্তু চীন থেকে প্রথম করোনা-সংক্রমণের খবর আসার দেড় বছর পরেও কেন ভাইরাসের উৎস চিহ্নিত করা গেল না- কার্যত সেই প্রশ্ন তুলেই ফের সমালোচনা করেছেন আমেরিকা, ব্রিটেন ও নরওয়ের অন্তত চার জন বিশেষজ্ঞ।
করোনার উৎস সন্ধানে বুধবারই মার্কিন তদন্তকারী দলকে তদন্তের গতি বাড়ানোর নির্দেশ দিয়েছেন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। ৯০ দিনের মধ্যে রিপোর্টও চেয়েছেন। মার্কিন তদন্তকারী সংস্থার অনুমান- স্বাভাবিক ভাবে নয়, চীনের সরকারি ল্যাব ‘উহান ইনস্টিটিউট অফ ভাইরোলজি’ থেকেই গত ২০১৯-এর ডিসেম্বর বা তারও আগে ছড়িয়েছিল নোভেল করোনাভাইরাস। অথচ চীন তা অস্বীকার করে লাগাতার বিভ্রান্তিকর তথ্য দিয়ে গিয়েছে। রোববার আমেরিকার দুই শীর্ষস্থানীয় সংক্রামক রোগ বিশেষজ্ঞ তথা প্রশাসনিক কর্তা দাবি করলেন, চীন এখনও যদি না এই তদন্তে সার্বিক ভাবে সাহায্য করে, তাহলে ভয়ঙ্কর অতিমারীর চেহারা নিয়ে ফিরবে কোভিড-২৬ কিংবা কোভিড-৩২। অর্থাৎ, আরও এক দশক ভুগতে হবে গোটা দুনিয়াকেই।
আবার ব্রিটেন এবং নরওয়ের দুই অধ্যাপক-বিজ্ঞানী কোনও রকম রাখঢাক না-রেখেই বললেন, এই মহামারীর জন্য দায়ী উহানে চীনা বিজ্ঞানীদের গবেষণা ও তার ফল পরখ করতে যাওয়া। এই ভাইরাস চীনা ল্যাবেই তৈরি। আগামী সপ্তাহে এদের ২২ পাতার গবেষণাপত্র বেরোতে চলেছে ‘বায়েফিজিক্স ডিসকভারি’ রিভিউ-জার্নালে। সূত্রের খবর, ল্যাবে এই ‘বিপর্যয়’ ঘটিয়ে ফেলার পরে চীনা বিজ্ঞানীরা কী ভাবে যাবতীয় প্রশ্নের মুখ উহানের ওয়েট মার্কেটের দিকে ঘুরিয়ে দিতে চেয়েছিলেন, তারও কথা আছে ওই বিস্ফোরক ২২ পাতায়।
চীনের বিরুদ্ধে হালে সুর চড়াতে শুরু করেছেন বাইডেন। তবে তার পূর্বসূরি ডোনাল্ড ট্রাম্প কার্যত কোনও ভণিতা না-করেই করোনার জন্য লাগাতার চীনকে দুষে এসেছেন। গত ফেব্রুয়ারিতে উহান-ফেরত বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রতিনিধিদল যে রিপোর্ট দিয়েছিল, তাতে অবশ্য ‘ক্লিনচিট’-ই পেয়েছে বেইজিং। উহান ল্যাব থেকে করোনা ছড়ানোর কথা ‘প্রায় অসম্ভব’ বলেই জানিয়েছিল ডব্লিউএইচও।

সূত্র: দ্য উইক।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

Translate »