Ultimate magazine theme for WordPress.

ঈদের দিন হঠাৎ রাজপথে ভিপি নুর

0

ক্রাইম টিভি বাংলা অনলাইন ডেস্ক —মোদিবিরোধী বিক্ষোভে গ্রেফতার বাংলাদেশ ছাত্র, যুব ও শ্রমিক অধিকার পরিষদ-এর নেতাকর্মীদের মুক্তির দাবিতে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে মানববন্ধন ও সমাবেশ হয়েছে।
শুক্রবার (১৪ মে) সকাল ১১টা থেকে ১২টা পর্যন্ত এসব কর্মসূচি পালন করা হয়। এই সময় ডাকসু’র সাবেক ভিপি নুরুল হক নুর উপস্থিত ছিলেন। সমাবেশে ছাত্র যুব, শ্রমিক পরিষদের প্রায় দুই শতাধিক নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।
নুরুল হক নুর বলেন, ভারতের সাম্প্রদায়িক প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশে আগমনের প্রতিবাদের কারণে আমাদের ৫১ জন সহযোদ্ধা এখনও কারাগারে। তারা কেউ ব্যাংক ডাকাত, লুটেরা কিংবা ধর্ষক নয়। তারা আজ দেশের জন্য, গণতন্ত্রের জন্য ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনার অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ বির্নিমাণের কথা বলতে গিয়ে জেলে রয়েছে। সভা-সমাবেশ, মিছিল-মিটিং গণতান্ত্রিক দেশে নাগরিক অধিকার। কিন্তু এই বিনা ভোটের ফ্যাসিবাদী সরকার ভিন্ন মত ও বিরোধীদের থামিয়ে দিতে দমন-পীড়ন চালাচ্ছে। দেশের রাজনৈতিক দলগুলো সরকারের চাপে কোণঠাসা হলেও তরুণদের সংগঠন ছাত্র, যুব, শ্রমিক অধিকার পরিষদ যখন মানুষের অধিকারের কথা বলছে, তখন সরকারের এই নগ্ন দমন-পীড়ন চলছে। তবে আমরা স্পষ্ট বলতে চাই, আপনারা যতোই মানুষের উপর দমন-পীড়ন চালাবেন, মানুষ ততো প্রতিবাদী হয়ে উঠবে।
আমার কোনো নেতাকর্মীর যদি অপরাধ প্রমাণ করতে পারেন তাহলে স্বেচ্ছায় কারাবরণ করবো মন্তব্য করে নুর বলেন, তাদের বিন্দুমাত্রও অপরাধ নেই। অন্যায়ভাবে তাদেরকে গ্রেফতার করে কারাগারে অমানবিক নির্যাতন করা হয়েছে, জামিন দেওয়া হচ্ছে না। আমরা বলতে চাই, অবিলম্বে মোদিবিরোধী আন্দোলনে গ্রেফতারকৃত নেতাকর্মীদের মুক্তি দিতে হবে। অন্যথায়, আমরা লকডাউন উপেক্ষা করে রাজপথে নামতে বাধ্য হবো।ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক আবু হানিফ বলেন, হামলা-মামলার ভয় দেখিয়ে ছাত্রসমাজকে দমানো যাবে না। আমরা ভীতু নই। মানুষের অধিকার আদায়ে আমাদের এই সংগ্রাম চলবে। অবিলম্বে মোদিবিরোধী আন্দোলনে গ্রেফতারকৃতদের মুক্তি দিতে হবে।
যুব অধিকার পরিষদের সদস্য সচিব মনজুর মোর্শেদ মামুন বলেন, সরকার গায়ের জোরে ভিন্নমত ও বিরোধীদের উপর দমন-পীড়ন চালাচ্ছে। এর থেকে বাঁচতে আমাদের সবাইকে সোচ্চার হতে হবে। সরকারকে মানবিক হওয়ার আহ্বান জানিয়ে ছাত্র ও যুব অধিকার পরিষদের গ্রেফতারকৃত নেতাদের মুক্তি দেওয়ার দাবি জানান তিনি।
ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক আরিফুল ইসলাম আদীবের সঞ্চলনায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন ছাত্র অধিকার পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক মোল্লা রহমতুল্লাহ, যুব পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক তারেক রহমান, শ্রমিক অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক আব্দুর রহমান।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

Translate »