Ultimate magazine theme for WordPress.

মাত্র ৫ মিনিটে পাবদা মাছের ঝোল রেসিপি

0

ক্রাইম টিভি বাংলা অনলাইন ডেস্ক …পাবদা মাছ সবার পরিচিত একটি দেশী মাছ। পাবদা মাছ চেনেন না এমন কাউকে হয়তো খুঁজে পাওয়া যাবে না। হ্যা, এমন টা হতে পারে যে, অনেকেই হয়তো কোনদিন পাবদা মাছ খেয়ে দেখেননি যে এই মাছ টির স্বাদ কেমন। তবে পাবদা মাছ যারা খেয়েছেন তারা অবশ্যই স্বীকার করতে বাধ্য হবেন যে দেশি যত প্রকার মাছ বাংলাদেশে পাওয়া যায় তাদের মধ্যে পাবদা মাছের স্বাদের তুলনা হয় না। এই মাছটি সব রকম ভাবেই রান্না করা যায়। পাবদা মাছের ঝোল থেকে শুরু করে এই মাছ টি দিয়ে ফিস ফ্রাই, ফিস কাটলেট এমনকি ভর্তা ও বানিয়ে খাওয়া যায়। আর এতে তেমন কাটা নেই বলে ছোট বড় সবারই পাবদা মাছ খুব পছন্দ। যাই হোক, পাবদা মাছের গুনগান তো অনেক হলো তাহলে চলুন আজকের ক্রাইম টিভি বাংলা রেসিপি তে যাওয়া যাক। আজকে আপনাদের জন্য নিয়ে এলাম চটপট একটি রান্নার রেসিপি। রেসিপি টি হলো – মাত্র ৫ মিনিটে পাবদা মাছের রেসিপি।
তাহলে চলুন আর দেড়ি না করে কিভাবে মাত্র ৫ মিনিটে মজাদার এই রান্নাটি করবেন এবং এই রান্নাটি করত্র কি কি প্রয়োজনীয় উপকরণ লাগবে সেগুলো একে একে দেখে নেয়া যাক –
মাত্র পাঁচ মিনিটে পাবদা মাছ রান্না করার জন্য প্রয়োজনীয় উপকরণ গুলো হলো –
• পাবদা মাছ – ৫/৬ টি
• হলুদ গুঁড়ো – ১ চা চামচ
• লাল মরিচের গুড়ো – ১ চা চামচ
• কাচা মরিচ ফালি – ৫/৬ টি
• জিরা গুঁড়ো – হাফ চা চামচ
• লবণ – পরিমাণ মত
• সরিষার তেল – পরিমাণ মত
• আস্ত কালোজিরা – হাফ চা চামচ
• আদা বাটা – ১ চা চামচ
মাত্র পাঁচ মিনিটে পাবদা মাছ রান্না করার প্রণালি :
১ম ধাপ –
পাবদা মাছ সহ একে একে উপরের সব উপকরণ (তেল ছাড়া) এক সঙ্গে মেখে ১৫-২০ মিনিট এর মত মেরিনেট করার জন্য রেখে দিন।
২য় ধাপ –
এবারে একটি কড়াইতে সরিষার তেল ভাল করে গরম করে আগে থেকে ম্যারিনেট করা মাছ গুলো এক এক করে দিয়ে দিন। তারপর একটি ঢাকনা দিয়ে চাপা দিয়ে মাছ গুলো মিডিয়াম আঁচে রান্না করুন। একটু পর পর মাঝে মধ্যে উল্টে দিন।

৩য় ধাপ –
সামান্য পানি দিয়ে মাছ গুলো কে ফুটতে দিন। এবারে মাছের ঝোল মাছ গুলোর গা মাখা মাখা হয়ে এলে চুলার আঁচ থেকে নামিয়ে নিয়ে গরম গরম ভাতের সঙ্গে পরিবেশন করতে পারেন।
তাহলে আপনারা দেখলেন তো কত সহজ এই পাবদা মাছের ঝোল রান্না করা। মাত্র পাঁচ মিনিট সময় নিয়েই আপনি এই রান্নাটি চটপট করে ফেলতে পারেন। মেহমান আপ্যায়ন করার জন্য অন্যান্য রান্নার পাশাপাশি এই রেসিপি টি আপনার মেন্যু তে যোগ করতে পারেন খুব সহজেই কারন খুব অল্প সময়েই যেহেতু এই রান্না টি করে ফেলা যায় তাই এই রেসিপি টি অন্যান্য রেসিপির সাথে যোগ হয়ে একটি ভিন্ন মাত্রা যোগ করে খাবারে। এমনকি রান্নার ঝামেলা এড়িয়ে সময় বাঁচাতে চাইলেও কিন্তু এই সুস্বাদু পাবদা মাছের ঝোল আপনি চাইলেই যে কোন সময় রান্না করে নিতে পারেন। এতে আপনার শ্রম এবং সময় দুটোই বাঁচবে। তাহলে আর দেড়ি না করে আজই আপনার খাবার মেন্যু তে এই পাবদা মাঝের ঝোল রান্না করে খেয়ে দেখুন। আশা করি নিরাশ হবেন না।

সুত্র – চটপট.কম

Leave A Reply

Your email address will not be published.

Translate »