Ultimate magazine theme for WordPress.

ফারুকের মৃত্যুর খবরটি গুজব, সিঙ্গাপুর থেকে জানালেন স্ত্রী

0

ক্রাইম টিভি বাংলা অনলাইন ডেস্ক …সিঙ্গাপুরে চিকিৎসাধীন বরেণ্য অভিনয়শিল্পী ও সাংসদ আকবর হোসেন পাঠান ফারুকের হঠাৎ মারা যাওয়ার খবর ছড়িয়ে পড়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে। ফেসবুকে অনেকে পোস্ট দিয়েও এমন খবর প্রচার করতে থাকেন। অনেক দায়িত্বশীল মানুষের পোস্টে বিভ্রান্তিতে পড়েন সাধারণ মানুষেরা। ফারুককে নিয়ে এমন খবর যে ছড়িয়েছে সিঙ্গাপুরে থাকা তাঁর স্ত্রী ও ঢাকার বাসার সদস্যদের কাছে। এমন খবর যাঁরাই ছড়িয়েছেন, তাঁদের নির্মম মানসিকতার মানুষ বলেছেন। অসুস্থ মানুষ সম্পর্কে এমন কথা ছড়ানো মোটেই উচিত নয় বলে জানিয়েছেন ফারহানা পাঠান। এটিকে স্রেফ গুজব বললেন তিনি।এদিকে ফারুকের সর্বশেষ শারীরিক অবস্থা জানতে কথা হয় তাঁর ছেলে রওশন হোসেন পাঠান শরতের সঙ্গে। ক্ষোভ নিয়ে তাঁর ছেলে বললেন, ‘আমার বাবার শারীরিক অবস্থা আমাদের পরিবার ছাড়া কাউকে জানানোর অধিকার দিইনি। আর আপনারা যাঁরা আব্বুর জানাশোনা, তাঁরাও আগ বাড়িয়ে কিছু বলবেন না। একটা পরিবারের প্রধান মানুষ যখন অসুস্থ থাকে, সেই পরিবার কী কঠিন সময় পার করে, তা শুধু ভুক্তভোগীরাই জানেন। তাই আমাদের ওপর বাড়তি কোনো মানসিক চাপ দেবেন না। আমাদের কাছ থেকে কিছু না শোনা পর্যন্ত গণমাধ্যমের বন্ধুরাও কিছুই লিখবেন না প্লিজ। আমাদের সঙ্গে যোগাযোগ করলে আমরাই সব জানাব।’
এর আগে ৫ এপ্রিল সন্ধ্যায় ফারুকের ছেলে শরৎ  বলেছিলেন, ‘১৬ দিন ধরে আইসিইউতে। ১৪ দিনে আব্বু কোনো কথা বলেননি। হালকা-পাতলা হাত-পা নাড়াচ্ছেন কিন্তু কোনো কথাই বলছেন না। চোখ মেলেও তাকাচ্ছেন না। আব্বু অচেতন হয়ে আছেন।’ তবে আজ বৃহস্পতিবারে সে অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছে বলে জানালেন ফারুকের স্ত্রী ফারহানা পাঠান। তিনি বললেন, ‘চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, ফারুকের শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছে। তবে সুস্থতার মাত্রার গতি খুবই ধীর। এভাবে না জেনে মারা যাওয়ার খবর ছড়াবেন না। সবই গুজব।’সবাইকে ফারুকের সুস্থতার জন্য দোয়া করার অনুরোধ করেছেন ফারহানা পাঠান।

নিয়মিত স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য গত মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহে সিঙ্গাপুরে যান বরেণ্য অভিনেতা ও সাংসদ আকবর হোসেন পাঠান ফারুক। পরীক্ষায় তাঁর রক্তে সংক্রমণ ধরা পড়ে। এরপর থেকেই শারীরিকভাবে অসুস্থতা অনুভব করছিলেন তিনি। সিঙ্গাপুরে নিজের পরিচিত চিকিৎসকের পরামর্শে দ্রুত হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁকে।
ফারুককে সিঙ্গাপুরের মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সেখানে তিনি চিকিৎসাধীন লাইয়ের তত্ত্বাবধানে। আট বছর ধরে সিঙ্গাপুরে নিয়মিত চিকিৎসাসেবা নিয়ে আসছেন ফারুক।

গত বছরের অক্টোবর মাসের শেষে চিকিৎসা শেষে সিঙ্গাপুর থেকে দেশে ফেরেন ফারুক। এরপর থেকে তিনি সুস্থই ছিলেন। চিকিৎসকেরা আগেই বলে দিয়েছিলেন, বেশ কিছু শারীরিক জটিলতা থাকায় ফারুকের শরীর খারাপ হতে পারে। সে জন্য তিন মাস পরপর রুটিন চেকআপ করাতে হবে। ফেব্রুয়ারি মাসে তিনি সেই নিয়মিত পরীক্ষা করাতে সিঙ্গাপুরে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। অবশেষে মার্চের দ্বিতীয় সপ্তাহে স্ত্রী ফারহানা পাঠানকে নিয়ে সেখানে যান তিনি।প্রায় পাঁচ দশক ঢালিউডে অবদান রেখেছেন অভিনেতা ফারুক। অভিনয় থেকে অবসর নেওয়ার পর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে ঢাকা-১৭ আসনে প্রথমবারের মতো সাংসদ নির্বাচিত হন তিনি।

সুত্র – প্রথম আলো

Leave A Reply

Your email address will not be published.

Translate »