Ultimate magazine theme for WordPress.

কংগ্রেসে হামলা ‘জাতির জন্য বড় লজ্জার’: ওবামা

ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র মুরিয়েল বাউজার টুইটারে তার আদেশের বিস্তারিত পোস্ট করে লেখেন– ‘পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত, আগে ঘোষণা করা জনজরুরি অবস্থার মেয়াদ বাড়িয়ে ১৫ দিন ঘোষণা করে নির্দেশ জারি করেছি।’

0

©ক্রাইম টিভি বাংলা অনলাইন ডেস্ক ♦

যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা মার্কিন কংগ্রেসে (ক্যাপিটল হিল) ট্রাম্প সমর্থকদের নজিরবিহীন হামলার ঘটনায় নিন্দা জানিয়েছেন।  তিনি বুধবার এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘এটি আমাদের জাতির জন্য বড় অসম্মান ও লজ্জার।’ খবর টাইমস অব ইন্ডিয়ার।

সাবেক প্রেসিডেন্ট ওবামা বলেন, ইতিহাস আজকের এই সহিংসতার কথা মনে রাখবে, যেখানে একজন নারীকে গুলি ও হত্যা করা হয়েছে। এই হামলার জন্য ডোনাল্ড ট্রাম্পের উসকানিকে দায়ী করে সাবেক প্রেসিডেন্ট আরও বলেন, আইনসঙ্গত নির্বাচনের ফলকে ভিত্তিহীনভাবে মিথ্যা প্রতিপক্ষ দাবিদার একজন দায়িত্বশীল প্রেসিডেন্টের উসকানিতে সংঘটিত এ হামলা আমাদের জন্য বড়ই অসম্মানের এবং জাতির জন্য লজ্জার।

স্থানীয় সময় বুধবার মার্কিন কংগ্রেসে জো বাইডেনের প্রত্যয়ন উপলক্ষে আইনপ্রণেতাদের বৈঠকের সঙ্গে ট্রাম্প সমর্থকরা নজিরবিহীন হামলা করে।  এই দাঙ্গায় অন্তত চারজন নিহত হন। এ ঘটনায় এই বিবৃতি দেন সাবেক ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা।

তিনি বলেন, একটি সুষ্ঠু নির্বাচনের ফলকে না মেনে রিপাবলিকান সমর্থকরা যে তাণ্ডব দেখিয়েছে, সেটি যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে বিরল। তবে এ ঘটনার নিন্দা জানানোয় রিপাবালিকান নেতাদের ধন্যবাদ জানান ওবামা। ‘এর পরও আমি আশাবাদী এই কারণে যে, রিপাবলিকান দল থেকেই এ হামলার নিন্দা জানানো হয়েছে।’

এদিকে এ ঘটনার পর ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র শহরে ১৫ দিনের জরুরি অবস্থা জারির ঘোষণা দিয়েছেন।

ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র মুরিয়েল বাউজার টুইটারে তার আদেশের বিস্তারিত পোস্ট করে লেখেন– ‘পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত, আগে ঘোষণা করা জনজরুরি অবস্থার মেয়াদ বাড়িয়ে ১৫ দিন ঘোষণা করে নির্দেশ জারি করেছি।’

ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র তার জরুরি অবস্থা ঘোষণার আদেশে বলেছেন, ‘অনেকেই অস্ত্রসহ এখানে এসেছে সহিংসতা ও ধ্বংসযজ্ঞে অংশ নিতে। তারা অস্ত্রের পাশাপাশি রাসায়নিক, ইট ও বোতলও নিক্ষেপ করেছে।’

Leave A Reply

Your email address will not be published.

Translate »