Ultimate magazine theme for WordPress.

একসঙ্গে ৪,৩০০ কর্মী ছাঁটাই করল সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্স ।

করোনাভাইরাস মহামারীর পর থেকে তীব্র আর্থিক সংকটের মধ্যে পড়েছে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্স। তবুও এতদিন পর্যন্ত একজন কর্মীকেও ছাঁটাই করেনি তারা।

0

©ক্রাইম টিভি বাংলা অনলাইন ডেস্ক ♠

একসঙ্গে ৪,৩০০ কর্মীকে ছাঁটাইয়ের কথা ঘোষণা করল সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্স। যা সংস্থাটির মোট কর্মী সংখ্যার প্রায় ২০ শতাংশ। এয়ারলাইন্সটির ইতিহাসে এর আগে কখনও এক সঙ্গে এত কর্মীকে ছাঁটাই করা হয়নি। করোনা মহামারীর জেরে সংস্থার আয় তলানিতে এসে ঠেকায় এই পদক্ষেপ বলে জানিয়েছে তারা। এর আগেও একাধিক বিমান সংস্থা কর্মী ছাঁটাইয়ের কথা ঘোষণা করেছে। খবর এএফপি

বর্তমানে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্সের মোট ফ্লাইটের ক্ষমতার ৮ শতাংশ চলাচল করছে। ২০২১ সালের ৩১ মার্চ শেষ হওয়া অর্থবর্ষের আগে কোনও অবস্থাতেই সেই সংখ্যাটা বেড়ে ৫০ শতাংশের গণ্ডি পার করবে না বলে ফের একবার পূর্বাভাসে জানিয়েছে এই বিমান সংস্থাটি।

করোনাভাইরাস মহামারীর পর থেকে তীব্র আর্থিক সংকটের মধ্যে পড়েছে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্স। তবুও এতদিন পর্যন্ত একজন কর্মীকেও ছাঁটাই করেনি তারা। তবে মহামারির করাল গ্রাস যত দীর্ঘায়িত হচ্ছে ততই ঘোরাল হচ্ছে পরিস্থিতি। একদিকে, সংস্থার ঋণের পরিমাণ লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। অন্যদিকে বাড়ন্ত মূলধন। প্রতিকূলতার মধ্যে দাঁড়িয়ে শেয়ার বিক্রির মাধ্যমে বাজার থেকে ১১ বিলিয়ন সিঙ্গাপুর ডলার সংগ্রহ করেছে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্স।

ছাঁটাই প্রসঙ্গে সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্সের চিফ এক্সিকিউটিভ এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘আগামী কয়েক সপ্তাহ এসএআই গোষ্ঠীর ইতিহাসে সবচেয়ে কঠিন সময় হতে চলেছে। কারণ আর কয়েকদিন পরে কয়েকজন বন্ধু ও সহকর্মী আমাদের ছেড়ে চলে যাবেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘যারা চাকরি থেকে ছাঁটাই হতে চলেছেন তাদের কর্মক্ষমতা ও দক্ষতা কম- এমন ভাবার কোনও কারণ নেই। করোনা মহামারীর জেরে বিশ্বজুড়ে আকস্মিকভাবে এক সংকট দেখা দিয়েছে। যার ধাক্কা এসে লেগেছে উড়ান পরিবহন শিল্পে। তার ফলশ্রুতিতে আমাদের বন্ধু ও সহকর্মীদের চাকরির উপরে কোপ পড়েছে।’

Leave A Reply

Your email address will not be published.

Translate »